ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম ও বাংলা নিয়ত সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নিন

ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ম ও নিয়ত

ঈদ মানেই খুশি। ঈদ মানেই আনন্দ। মুসলমান এই আনন্দ প্রকাশ করে ঈদুল আজহার নামাজ ও কুরবানির মাধ্যমে। মহান আল্লাহ তাআলা মুসলমানদের জন্য বছরে দুই টি বড় উৎসবের সুযোগ করে দিয়েছেন। একটি হলো ঈদুল ফিতর এবং অন্যটি ঈদুল আযহার নামাজ। যা বছরে এক বার করে পালিত হয়ে থাকে। আর এই ঈদুল ফিতর এবং ঈদুল আজহার নামাজ আদায় করা ওয়াজিব। বছরে দুই বার ঈদের নামাজ আদায় করা হয়। এর কারনে অনেক মুসলমান ঈদুল ফিতরের নামাজ এবং ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম ভুলে যান। কেউ আবার জানাজার নামাজের মত আদায় করেন। তাই আপনাদের সুবিধার জন্য ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ম, ঈদুল আযহার নামাজের বাংলা নিয়ত তুলে ধরলাম। আমাদের প্রিয় নবী রাসূল (সাঃ) ও ঈদের নামাজ আদায় করেছেন। চলুন তাহলে বন্ধুরা শুরু করি আমাদের আজকের মূল আলোচ্য বিষয়। ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম এবং ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা।

Sponsored

ঈদুল আজহার নামাজ

পবিত্র ঈদুল ফিতরের নামাজ এবং ঈদুল আজহার নামাজ আদায় করা ওয়াজিব। ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম মতে, এই ঈদুল আজহার নামাজ জিলহজ্ব মাসের ১০ তারিখে অনুষ্ঠিত হয়ে থাকে। ঈদুল আযহার নামাজ দুই রাকাত। ঈদুল ফিতরের নামাজ এবং ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ম হচ্ছে খোলা আকাশের নিচে আদায় করা। হযরত মোহাম্মদ (সাঃ) ঈদের নামাজ আদায় করেছেন। পবিত্র কোরআনে মহান আল্লাহ তাআলা ইরশাদ করেছেন,

فَصَلِّ لِرَبِّكَ وَٱنْحَرْ (ফাসালিল লিরাব্বিকা ওয়ানহার)।

অতএব আপনার পালনকর্তার উদ্দেশ্যে নামাজ পড়ুন এবং কোরবানী করুন। (সুরা আল কাউছার আয়াত নংঃ ২)

এই ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম অন্যান্য নামাজের মত নয়। ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ম অনুযায়ী প্রথমে ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত করতে হবে। এই নামাজে কোন আযান ও ইকামত নেই। তবে ঈদুল আজহার নামাজ এ রুকু, সিজদা, তাশাহুদ সব আছে। কিন্তু অতিরিক্ত ছয় তাকবির দিয়ে ঈদুল আজহার নামাজ আদায় করতে হয়। তাই প্রত্যেকের উচিত ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম ভালোভাবে জেনে। ঈদের নামাজ আদায় করা।

ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম ও পদ্ধতি

সব নামাজের যেমন নিয়ম কানুন রয়েছে। তেমনি ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম রয়েছে। কিন্তু অনেকে আজ আমরা ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম সমন্ধে সঠিক ভাবে জানি না। সঠিকভাবে ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ম না জানার কারনে। আমরা ঈদুল আজহার নামাজ সহিহ ভাবে আদায় করতে পারি না। তাই আমাদের প্রত্যেকের উচিত ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ম ও ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত সম্পর্কে পূণাঙ্গ ধারণা অর্জন করা। তবে ঈদুল আযহার নামাজের বাংলা নিয়ত করা যাবে। ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম নিম্নে তুলে ধরা হলো।

কুরবানি বা ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম

অন্যান্য নামাজ এবং ঈদুল আজহার নামাজ এর মধ্যে পার্থক্য হলো অতিরিক্ত ছয় তাকবির। নিচে ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম দেওয়া হলো।

  • ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম অনুসারে ঈদের দিন খুব সকালে ঘুম উঠে গোসল করে পরিষ্কার পোশাক পরতে হবে। এরপর মিষ্টি জাতীয় কিছু খেয়ে নিতে হবে।
  • তারপর ঈদুল আজহার নামাজ আদায় করার জন্য মনে মনে তাকবির বলে ঈদ্গাহ মাঠে যেতে হবে। এটি শুধু ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম নয়, ঈদুল ফিতর নামাজের নিয়ম।
  •  প্রথমে ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম অনুযায়ী ঈদের নামাজের নিয়ত করতে হবে। এই ঈদুল আযহার নামাজের বাংলা নিয়ত ও করা যাবে।
  • তবে চেষ্টা করতে হবে ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত আরবিতে করা।
  • ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত করে ‘আল্লাহু আকবার’ বলে তাহরিমা বাধঁতে হবে।
  • ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত করে তাহরিমা বেধে প্রথমে ছানা পাঠ করতে হবে।
  •  তারপর ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ম অনুযায়ী প্রথম দুই তাকবিরে হাত তুলে ছেড়ে দিতে হবে। তৃতীয় তাকবিরে হাত তুলে তাহরিমা বাধঁতে হবে।
  • এরপর ইমাম সাহেব আউজুবিল্লাহ ও বিসমিল্লাহ পড়ার পর সুরা ফাতিহা পড়ে এর সঙ্গে অন্য একটি সুরা মেলাবেন।
  •  তারপর ইমাম সাহেব অন্যান্য নামাজের মত রুকু সিজদাহ করে প্রথম রাকাত ঈদুল আযহার নামাজ আদায় করবেন।

ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ম দ্বিতীয় রাকাত

  • দ্বিতীয় রাকাতের জন্য দাঁড়িয়ে ইমাম সুরা ফাতেহার সাথে অন্য সুরা মিলিয়ে নিয়ে রুকুতে যাওয়ার আগে অতিরিক্ত তিন তাকবির দেবেন। প্রতি তাকবিরে হাত ছেড়ে দিয়ে চতুর্থ তাকবিরে রুকুতে যাবেন।
  •  ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ম অনুযায়ী স্বাভাবিক নামাজের মতই ঈদুল আজহার নামাজ শেষ করবেন। অন্য নামাজে যেমন আত্ত্যাহিয়াতু, দরুদ শরীফ ও দোয়া মাছুরা পড়তে হয়। ঠিক ঈদুল আযহার নামাজ আদায় করতে এগুলো পড়তে হয়।
  •  ঈদুল আজহার নামাজ শেষ করে ইমাম মিম্মারে উঠবেন। তারপর ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম অনুসারে তিনি দুই টি খুতবা পাঠ করবেন। যা সবাই কে মনোযোগ সহকারে শুনতে হবে।
  •  এরপর খুতবা শেষ করে সবাই ঈদগাহ ত্যাগ করবেন। তবে ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম মতে সবার সাথে কোলাকুলি করা অতি উত্তম।

ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত

প্রত্যেক নামাজের যেমন নিয়ত রয়েছে। তেমনি ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত আছে। সব নামাজের যেমন বাংলা ও আরবি নিয়ত রয়েছে। তেমনি ঈদুল আযহার নামাজের বাংলা নিয়ত ও আরবী নিয়ত রয়েছে। যারা আরবীতে ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত করতে পারে না। তারা ঈদুল আযহার বাংলা নিয়ত করতে পারবে। তবে আপনি ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত যে কোন ভাষায় করতে পারবেন। ঈদুল আযহার নামাজের বাংলা নিয়ত, আরবী নিয়ত, ফারর্সি নিয়ত ও করতে পারবেন। তবে আমাদের সবার উচিত ঈদুল আযহার নামাজের বাংলা নিয়ত না করে আরবিতে নিয়ত করা। কেননা, ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত আরবিতে করতে পারলে দ্বিঘুন সওয়াব পাওয়া যাবে। হাদিসে পাওয়া যায় আরবি একটি অক্ষর বললে ১০নেকি পাওয়া যায়। তাই আমরা যদি আরবিতে ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত করতে পারি। তাহলে কত গুলো নেকি পাবো তা আল্লাহ তাআলা জানেন। নিচে ঈদুল আযহার নামাজের বাংলা নিয়ত ও আরবী নিয়ত তুলে ধরা হলো।

আরবিতে ঈদুল আযহার নামাজের নিয়তঃ نويت ان اصلي لله تعالي ركعتي صلاة العيد الاضحى مع ستة تكبيرات واجب الله تعالى اقتدیت بهذا الامام متوجها الى جهة الكعبة الشريفة اللهاکبر

ঈদুল আযহার নামাজের বাংলা নিয়ত উচ্চারণঃ নাওয়াইতু আন উছাল্লিায়ালিল্লাহি তা’আলা রাকাতাই সালাতি ঈদিল আদ্বহা মাআ সিত্তাতি তাকবিরাতি ওয়াজিবুল্লাহি তাআলা মুতাওয়াজ্জিহান ইলা জিহাতিল কা’বাতিশ শারীফাতি আল্লাহু আকবার।

কুরবানি বা ঈদুল আযহার নামাজের বাংলা নিয়তঃ আল্লাহ তাআলার উদ্দেশে কিবলামুখী হয়ে ঈদুল আজহার ২ রাকাআত ওয়াজিব নামাজ ৬ তাকবিরের সাথে এই ইমামের পেছনে আদায় করছি ‘আল্লাহু আকবার’।

আল্লাহ তাআলা আমাদের সবাই কে ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম ও ঈদুল আযহার নামাজের নিয়ত জেনে ঈদের নামাজ আদায় করার তৌফিক দান করুন। আমিন

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More